• আলোকিত মূখ

    বঙ্গবন্ধুর ৪৭তম শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষে/ টুঙ্গিপাড়ায় মেজবানের আয়োজন এমপি কমলের

      প্রতিনিধি ৬ সেপ্টেম্বর ২০২২ , ৫:০৪:২৬ প্রিন্ট সংস্করণ

    আজিজ উদ্দিন।।

    জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৭তম শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষে, কক্সবাজার সদর রামু আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব সাইমুম সরওয়ার কমলের মহৎ উদ্যোগে।

    কক্সবাজার সদর ও রামু উপজেলার আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ, শ্রমিকলীগ ও ছাত্রলীগসহ প্রায় ৪২টি এসি বাস ও ২০টিরও বেশি নোহা গাড়ি করে ২০০০জন নেতাকর্মী নিয়ে কবর জিয়ারত ও মেজবানের আয়োজনে আগামীকাল রাত ৯ঘটিকায় কক্সবাজার রামু উপজেলার খিজারী স্কুল মাঠ থেকে একযোগে বাস ছেড়ে টুঙ্গিপাড়া জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের মাজারের উদ্দ্যশ্যে রওনা করবেন।

    কবর জিয়ারত ও মেজবানের আয়োজনে প্রধান সমন্বয়কারী হিসেবে আছেন কক্সবাজার সদর রামু আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব সাইমুম সরওয়ার কমল। আহবায়ক হিসেবে আছেন, কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি রামু উপজেলার কৃতি সন্তান জাফর আলম চৌধুরী।

    আয়োজক কমিটির প্রধান সমন্বয়কারী আলহাজ্ব সাইমুম সরওয়ার কমল এমপি বলেন, আমরা প্রতিবছর জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শাহাদাত বার্ষিকী রামু উপজেলা আওয়ামী লীগের ব্যবস্থাপনায় রামু ফুটবল স্টেডিয়ামের মাঠে হাজার হাজার নেতাকর্মী ও দুস্থ মানুষদের জন্য মেজবানের আয়োজন করে থাকি।

    মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা দক্ষিণ বঙ্গের মানুষের নদী পথের যাতায়াতে হয়রানী ও দূর্ঘটনার কবল থেকে রক্ষা করার জন্য উদার মনের হয়ে পদ্মা সেতু নির্মাণ করেছেন।

    উক্ত পদ্মা সেতু উদ্বোধন হওয়ার পর রামু উপজেলার নেতাকর্মীরা সহসা এই প্রথম বৃহত্তর আকারে পদ্মা সেতু দিয়ে বঙ্গবন্ধুর মাজার জিয়ারত করতে যাওয়ার জন্য ব্যবস্থা করেছি।

    আমার রামু উপজেলার নেতাকর্মীরা জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতে গড়া পদ্মা সেতু হয়ে বঙ্গবন্ধুর ৪৭তম শাহাদাত বার্ষিকী পালন করতে পারবে। আমি চাই, আমার এলাকার মানুষ বঙ্গবন্ধুকে আরো বেশি জানার জন্য আমার এই আয়োজন।

    এই আয়োজনে আমাদের নেতাকর্মীদের সাথে থাকছে মেডিকেল টিম, এ্যাম্বুলেন্স, মেডিসিন ব্যবস্থা, সাংবাদিক টিম ও সুধিসমাজ এবং গাড়ি মেরামতকারী টিম। আয়োজক কমিটির দায়িত্বে থাকা কয়েকজন ইতিমধ্যে টুঙ্গিপাড়া পৌছেছেন।

    তারা সেখানে ২০০০মানুষের জন্য মেজবানের আয়োজনের যাবতীয় কাজগুলো সম্পূর্ণ করবেন।
    আগামীকাল রাত ৯ঘটিকায় রওনা হলে, এরপরদিন সকাল ৯টা বা ১০মধ্যে আমরা টুঙ্গিপাড়া অবস্থান করতে পারব।

    এবং সবাই মিলে একসাথে কবর জিয়ারতে অংশ গ্রহণ শেষে মেজবানে অংশ নিবে।
    এরপর সন্ধ্যা পর্যন্ত টুঙ্গিপাড়া অবস্থান নিয়ে রাতে কক্সবাজারের উদ্দ্যশ্যে আমরা টুঙ্গিপাড়া ত্যাগ করব।

    আমি কক্সবাজার ও রামু বাসীর কাছে দোয়া চাই, যেন আমি নেতাকর্মীদের নিয়ে সুন্দরভাবে কবর জিয়ারত ও মেজবান শেষে কক্সবাজারে ফিরে আসতে পারি।

    http://এইচ/কে

    আরও খবর

                       

    জনপ্রিয় সংবাদ